তেজগাঁও সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়

TGHS - ভৌত অবকাঠামো

 

ভৌত অবকাঠামো

 

বিদ্যালয়টিতে একটি এল টাইপ তিনতলা ভবন, একটি দোতলা ভবন ও একটি পাঁচতলা ভবন রয়েছে।

প্রশাসনিক ভবন নামে পরিচিত তিনতলা ভবনের নিচ তলায় প্রধান শিক্ষকের কক্ষ, সহকারী প্রধান শিক্ষকদ্বয়ের কক্ষ ও অফিসকক্ষ।

উত্তর ভবন নামে পরিচিত তিনতলা ভবনের নিচতলায় রেকর্ডরুম, অভিভাবক শিক্ষক মিলনায়তন ছাড়াও সাতটি কক্ষে শ্রেনির কাজ পরিচালিতহয়। দ্বিতীয় তলায় সেসিপ নিয়ন্ত্রিত একটি কম্পিউটার ল্যাব, গার্হস্থ্য বিজ্ঞান ল্যাব, মহিলাদের নামাযের কক্ষ, পরীক্ষা নিয়ন্ত্রণ কক্ষ, পদার্থ বিজ্ঞান ল্যাব, রসায়ন ল্যাব, জীববিজ্ঞান ল্যাব ছাড়াও ছয়টি কক্ষে শ্রেণির কাজ পরিচালিত হয়। তিন তলায় রয়েছে শুধুমাত্র ছাত্রীদের জন্য চৌদ্দটি শ্রেণিকক্ষ এবং ওয়াশরুম। ভবনটির পূর্ব ও পশ্চিম দিকে রয়েছে উঠানামার সিড়ি।

পূর্ব ভবন নামে পরিচিত দোতলা ভবনটির নিচতলার ছয়টি কক্ষের একটিতে নিরাপত্তার দায়িত্বে নিয়োজিত আনসার বাহিনীর আবাসিক কক্ষ। দুটিতে গুলশান শিক্ষা থানার মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তার অস্থায়ী অফিস ও বাকী তিনটি স্টোর হিসেবে ব্যবহৃত হচ্ছে। দোতলার ছয়টি কক্ষে শ্রেণির কাজ পরিচালিত হয়। উক্ত ভবনটির সাথে তিন তলা ভবনের সংযোগ রয়েছে একটি ছোট ব্রীজের মাধ্যমে।

দখিন ভবন নামে পরিচিত পাঁচ তলা ভবনের নিচ তলায় রয়েছে একটি হলরুম। দোতলায় রয়েছে তিনটি শ্রেণিকক্ষ এবং স্কাউট ডেন। তিনতলায় রয়েছে একটি মাল্টিমিডিয়া ক্লাসরুম ও সুবিশাল লাইব্রেরি। চার তলায় রয়েছে একটি মাল্টিমিডিয়া ক্লাসরুম ও কম্পিউটার ল্যাব ও রেডক্রিসেন্ট কক্ষ। পাঁচ তলায় রয়েছে একটি ছোট হল রুম, একটি শ্রেণিকক্ষ এবং গার্লস গাইড অফিস। তাছাড়া অত্র ভবনে পূর্বদিকে নিচ তলা থেকে পাঁচ তলা পর্যন্ত রয়েছে ছাত্র-ছাত্রীদের জন্য আধুনিক টয়লেট।

পাঁচ তলা ভবনের প্রতিটি ফ্লোরের পূর্ব পাশে রয়েছে ওয়াস ব্লক।  নিচে পশ্চিম পাশে একটি শেড তৈরি করে দশটি পানির কল বসিয়ে ছাত্র-ছাত্রীদের জন্য হাত-মুখ ধোয়ার সুব্যবস্থা করা হয়েছে। তিন তলা ভবনের তিন তলায় এবং নিচ তলায় পানির লাইনে ফিল্টার বসিয়ে করা হয়েছে বিশুদ্ধ পানির সুব্যবস্থা। করোনা অতিমারীর কারণে যথাযথভাবে স্বাস্থ্যবিধি পালনের লক্ষে বিদ্যালয়ের প্রবেশদ্বারে দুটি পয়েন্টে হাত ধোয়ার ব্যবস্থা করা হয়েছে। বিদ্যালয়টিতে রয়েছে পরিবেশ বান্ধব অসংখ্য ফলজ, বনজ ও ঔষধী বৃক্ষ। তিনটি ভবনের মাঝে রয়েছে ছাত্র-ছাত্রীদের জন্য খেলার মাঠ। প্রতিটি ভবনেই রয়েছে পানি সরবরাহ ব্যবস্থা ও বৈদ্যুতিকলাইন।

ছাত্র-ছাত্রীদের টিফিন তৈরির জন্য আধুনিক সুযোগ-সুবিধা সম্বলিত কোন ক্যাফেটেরিয়া ভবন না থাকলেও একটি আধা পাকা বড় ঘরে গ্যাসলাইন সংযোগ দিয়ে শিক্ষার্থীদের মধ্যাহ্নকালীন টিফিন কর্মসূচী চালু আছে।

বিদ্যালয়ের দক্ষিণ-পশ্চিম পাশের একটি পরিত্যক্ত ভবন দীর্ঘদিন ধরে ভেঙ্গে ফেলার জন্য সংশ্লিষ্টদপ্তরে আবেদন করা হলেও সুরাহা হচ্ছেনা এ সমস্যার।